,
আপডেট

সুস্থ থাকতে পান করুন ‘৫’ ধরনের ভেষজ চা

বাজারে প্রচলিত চা ছাড়াও বহু ধরনের চা বানানো সম্ভব। সম্প্রতি গ্রিন টি বিষয়ে সচেতনতা বাড়লেও ভেষজ চা সম্পর্কে অনেকেই অন্ধকারে রয়েছেন। শরীরের প্রয়োজন অনুযায়ী নানা প্রাকৃতিক উপাদান ব্যবহার করে চায়ের স্বাদ যেমন বাড়ানো যায় তেমন উপকারও পাওয়া যায়। এ লেখায় থাকছে তেমন কয়েকটি চায়ের তথ্য।

১. এলাচ চা –

এলাচ চা হতে পারে আপনার দিন শুরু করার সবচেয়ে ভালো পানীয়। এটি শুধু হজমশক্তিই বাড়ায় না আরও কিছু গুণ রয়েছে এলাচ চায়ের। এটি মাথাব্যথা কমায়, পেটের সমস্যা দূর করে এবং দেহ ঠাণ্ডা রাখতে সহায়তা করে। এছাড়া এলাচের উপাদান দেহ থেকে দূষিত পদার্থ দূর করতে সহায়তা করে।

২. দারুচিনি চা –

প্রধানত মসলা হিসেবে ব্যবহৃত দারুচিনি নামের ভেষজটির উপকার সম্বন্ধে অনেকেরই জানা নেই। এটি অত্যন্ত উচ্চমাত্রার অ্যান্টিঅক্সিডেন্টসমৃদ্ধ একটি উপাদান। দারুচিনি চা দেহের কোলস্টেরলের মাত্রা নিয়ন্ত্রণে সহায়তা করে। ফলে হৃদরোগের মতো মারাত্মক রোগও দূরে রাখা সম্ভব এ চা পান করে।

  (এই বিষয়গুলোর উপর ভিডিও বা স্বাস্থ্য বিষয় ভিডিও দেখতে চাইলে সাবস্ক্রাইব করে রাখুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেলটি - ঠিকানা - YouTube.com/HealthBarta)

৩. জাফরান চা –

মূল্যবান এ মসলাটিতে রয়েছে বহু ধরনের গুণ। অনেকেই জাফরান বিভিন্ন খাবার প্রস্তুতে ব্যবহার করলেও চায়ে ব্যবহারে অভ্যস্ত নন। তবে এক কাপ চায়ে যদি সামান্য জাফরান ব্যবহার করা হয় তাহলে তা শুধু স্বাদ কিংবা সৌন্দর্যই বাড়াবে না কিছু স্বাস্থ্যগত সুবিধাও পাওয়া যাবে। জাফরানের রয়েছে ক্যান্সার প্রতিরোধী উপাদান। এছাড়া এটি হৃদরোগ প্রতিরোধ করে ও দৃষ্টিশক্তি ভালো রাখতে সহায়তা করে।

৪. জিরা চা –

জিরা ঘুমের সমস্যা দূর করতে সহায়তা করে। এছাড়া এটি দেহ শীতল করতেও ভূমিকা রাখে। জিরা বিভিন্ন খাবার থেকে দেহের জন্য প্রয়োজনীয়আয়রন গ্রহণে সহায়তা করে। তাই চায়ে জিরার গুড়া প্রয়োগে বহু উপকার পাওয়া সম্ভব।

৫. ক্যামোমিল চা –

এক কাপ ক্যামোমিল চা মানসিক চাপ কমাতে সহায়তা করে। রাতের খাবারের পর এক কাপ ক্যামোমিল চা উদ্বেগ দূর করে ঘুম আনতে সহায়তা করে। ত্বকের নানা সমস্যা দূর করতেও ক্যামোমিল কার্যকর।

বিশেষ মুহূর্তে যৌন দুর্বলতা, শুক্র স্বল্পতা, মিলনে সময় সময় কম, লিঙ্গের শিথিলতা সহ যে কোন যৌন সমস্যায় অভিজ্ঞ চিকিৎসকের পরামর্শ নিন এবং স্থায়ী চিকিৎসা গ্রহন করুন। যোগাযোগ করুন ডাক্তার নাজমুলঃ 01799 044 229

আপডেট পেতে লাইক দিন আমাদের ফেসবুক পেজে

Leave a Reply