,
আপডেট

একজন সুস্থ ও স্বাভাবিক নারীর ১০ টি লক্ষণ

একজন নারী মা, বোন কিংবা স্ত্রী যে কোনো চরিত্রেই সকলের খেয়াল রেখে চলেন। প্রত্যেকের স্বাস্থ্যের প্রতি তাদের নজর থাকে। কিন্তু বেশিরভাগ সময় নারী নিজের শরীরের দিকে নজর করতেই ভুলে যান।

অন্যের দিকে খেয়াল রাখতে রাখতে এবং সংসারের সকল কাজকর্ম করতে গিয়ে অনেক নারীই নিজের শরীরের দিকে ঠিক মতো খেয়াল রাখতে পারেন না। ফলে সঠিক সময়ে কোনো সমস্যা ধরা পড়ে না ও পরবর্তীতে অনেক ঝামেলার সৃষ্টি হয়।

অনেক নারী অবশ্য নিজের স্বাস্থ্যের বিষয়ে বেশ সচেতন থাকেন। স্বাস্থ্য সচেতন যারা, তারা বেশ কষ্ট করেই নিজের দেহের প্রতি সতর্ক দৃষ্টি রেখে চলেন। কিন্তু এই সচেতনতা সকলের মধ্যে আনতে হবে। কারণ স্বাস্থ্য ভালো তো মন ভালো। আর মন ভালো থাকলে শান্তি বজায় থাকে।

তাই সুস্থ স্বাভাবিক জীবন পেতে স্বাস্থ্যের প্রতি নজর রাখা প্রত্যেক নারীর প্রয়োজন। কিন্তু কীভাবে বুঝবেন আপনি সুস্থ আছেন? কিছু লক্ষণ রয়েছে যা দেখে নির্ণয় করতে পারেন আপনি সুস্থ আছেন। চলুন তবে দেখে নেয়া যাক একজন সুস্থ স্বাভাবিক নারীর মধ্যে যে লক্ষণগুলো থাকা উচিৎ সেগুলো কী কী।

  (এই বিষয়গুলোর উপর ভিডিও বা স্বাস্থ্য বিষয় ভিডিও দেখতে চাইলে সাবস্ক্রাইব করে রাখুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেলটি - ঠিকানা - YouTube.com/HealthBarta)
  • একজন সুস্থ স্বাভাবিক নারীর সাধারণ অবস্থায় হার্টবিট রেট হবে ৬৫-৭০ বা এর কাছাকাছি। সুস্থ আছেন কিনা জানতে চাইলে আজই পরীক্ষা করে দেখুন।
  • একজন সুস্থ দেহের নারীর প্রস্রাবের রঙ হালকা হলুদ হয়। এতে বোঝা যায় কিডনি সুস্থ রয়েছে এবং দেহে পরিমান মতো পানি রয়েছে।
  • সুস্থ দেহের অধিকারী নারীর ওজন উচ্চতা অনুযায়ী আদর্শ ওজনের ৫ কেজি কম বেশি হতে পারে, কিন্তু এর বাইরে নয়। এবং এই ওজনের তারতম্য অনেক কম ঘটবে। অর্থাৎ খুব হঠাৎ ওজন বেড়ে যাওয়া এবং হঠাৎ ওজন কমে যাওয়ার মতো ঘটনা ঘটবে না।
  • মাসিকের সময়সূচী থেকে একজন নারীর সুস্থতা নির্ণয় করা যায়। যদি প্রতি ২৮-৩০ দিন পর পর মাসিকের সময়সূচী নির্দিষ্ট থাকে তাহলে বুঝে নেবেন আপনার শারীরিক সুস্থতা বজায় আছে (বছরে ১ বার সময়সূচী পরিবর্তিত হতে পারে)।
  • যদি ছোটোখাটো কাটাছেঁড়া হলে রক্ত পড়া ২/৩ মিনিটের মধ্যে বন্ধ হয় এবং ক্ষত স্থান দ্রুত শুকিয়ে যায় তবে বুঝবেন আপনার রক্তে কোনো সমস্যা নেই এবং আপনি সুস্থ দেহের অধিকারী একজন নারী।
  • চুলের দিকে লক্ষ্য করুন ভালো করে। চুলের মসৃণতা খেয়াল করুন এবং চুল পড়ার হারের প্রতি নজর রাখুন। চুল মসৃণ থাকলে এবং দিনে ১০০ চুল পড়লে বুঝে নেবেন আপনি সুস্থ আছেন। যদি চুল রুক্ষ থাকে এবং চুল পড়ার মাত্রা বেড়ে যায় তবে বুঝবেন আপনার দেহে ভিটামিনের অভাব রয়েছে।
  • ডাক্তার এবং স্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞদের মতে একজন সুস্থ দেহের নারী এলার্ম এবং অন্য কারো সাহায্য ছাড়াই প্রতিদিন সকালে প্রায় একই সময়ে ঘুম থেকে উঠতে পারেন এবং ঘুমের সময়কাল ৬-৮ ঘণ্টা ব্যপী হয়। এর থেকে কম বা বেশি ঘুম অসুস্থতার লক্ষণ।
  • দৌড়ানো কিংবা ভারী কোনো কাজ করার পর হার্ট বিটের অবস্থা খেয়াল করুন। যদি আপনার হার্ট বিট ৫-১০ মিনিটের মধ্যে স্বাভাবিক হয়ে যায় তবে বুঝবেন আপনি সুস্থ আছেন।
  • খাবারের সময় যদি হঠাৎ একদিন পরিবর্তন হয় এবং এতে করে যদি আপনার বুক জ্বালাপোড়া এবং বাথরুমের কোনো সমস্যা না হয় তবে বুঝবেন আপনি সুস্থ আছেন। মাত্র ১ দিনের খাদ্যের সময়সূচী পরিবর্তনে বুকজ্বালাপোড়া হলে তা অসুস্থতার লক্ষণ।
  • একজন সুস্থ নারী হিসেবে আপনার ১০টি বা এর কাছাকাছি পুশআপ করার ক্ষমতা থাকবে। পুশআপ করার অভ্যাস থাকলে আজই চেষ্টা করে দেখুন পুশআপ করতে পারেন কিনা।
বিশেষ মুহূর্তে যৌন দুর্বলতা, শুক্র স্বল্পতা, মিলনে সময় সময় কম, লিঙ্গের শিথিলতা সহ যে কোন যৌন সমস্যায় অভিজ্ঞ চিকিৎসকের পরামর্শ নিন এবং স্থায়ী চিকিৎসা গ্রহন করুন। যোগাযোগ করুন ডাক্তার নাজমুলঃ 01799 044 229

আপডেট পেতে লাইক দিন আমাদের ফেসবুক পেজে

Leave a Reply