,
আপডেট

যে ৬টি খাবার হয়ে উঠতে পারে মাথা ব্যাথার কারণ

আপনার কি প্রায়ই মাথা ব্যাথা করে? কোনো কারণ ছাড়াই কি প্রচন্ড মাথা ব্যাথায় সব কাজ ফেলে চোখ বন্ধ করে শুয়ে থাকতে হয় আপনাকে? আপনি যদি একজন নিয়মিত মাথা ব্যাথায় আক্রান্ত ব্যক্তি হয়ে থাকেন তাহলে জেনে নিন যে আপনার খাদ্যাভ্যাসও হতে পারে আপনার মাথা ব্যাথার একটি কারণ।

বিশেষ কিছু খাবার আছে এগুলো নির্দিষ্ট কিছু মাথা ব্যাথা সৃষ্টিকারী উপাদান রয়েছে। তাই এই খাবার গুলো যদি নিয়মিত আপনার খাবার তালিকায় থাকে তাহলে মাথা ব্যাথার যন্ত্রণা সহজে আপনার পিছু ছাড়বে না। আসুন জেনে নেয়া যাক ৬টি খাবার সম্পর্কে যেগুলো হয়ে উঠতে পারে মাথা ব্যাথার কারণ।

অ্যালকোহল:

অ্যালকোহলে প্রচুর পরিমাণে টাইরামাইন থাকে যা ডিহাইড্রেশন ও হ্যাং ওভারের কারণ। এটি এক প্রকারে এমিনো এসিড যা রঙের কণিকা গুলোর উপর বিরূপ প্রভাব ফেলে এবং প্রচন্ড মাথা ব্যাথা সৃষ্টি করতে পারে।

চকলেট:

যাদের মাইগ্রেনের সমস্যা আছে তাদের চকলেট এড়িয়ে চলা উচিত। কারণ চকলেটে আছে মাথা ব্যাথা সৃষ্টিকারী উপাদান।

  (এই বিষয়গুলোর উপর ভিডিও বা স্বাস্থ্য বিষয় ভিডিও দেখতে চাইলে সাবস্ক্রাইব করে রাখুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেলটি - ঠিকানা - YouTube.com/HealthBarta)

কফি:

কফি মাথা ব্যাথার কারণ নয়। কিন্তু অতিরিক্ত কফি পান করলে নেশার মত হয়ে যায়। তখন কফি না খেলে মাথা ব্যাথা করে অনেকের। এছাড়াও মাইগ্রেনের সমস্যা আছে যাদের তারা অতিরিক্ত কফি পান করা থেকে বিরত থাকার চেষ্টা করুন।

কৃত্রিম চিনি:

যারা ওজন সমস্যায় ভুগছেন অথবা ডায়াবেটিসের সমস্যা আছে তাঁরা অনেকেই কৃত্রিম চিনি ব্যবহার করেন খাবারে। কিন্তু কৃত্রিম চিনিতে আছে অ্যাসপার্ট্যাম যা নিয়মিত মাইগ্রেনের সমস্যা বৃদ্ধি পায়।

পনির:

অনেকেই পনির খেতে খুব ভালোবাসেন। কিন্তু পনির হতে পারে মাথা ব্যাথার কারণ। বিশেষ করে পার্মেসান চিজ, চেডার চিজ ও কিছুটা পুরানো হয়ে যাওয়া পনির গুলো মাথা ব্যাথার সৃষ্টি করে।

আইসক্রিম:

আইসক্রিম খুব ভালোবাসেন? তাহলে আপনার জন্য দুঃসংবাদ। আইসক্রিম খেলে মাথা ব্যাথা বেড়ে যাওয়ার সম্ভাবনা থাকে। বিশেষ করে খুব ঠান্ডা আইসক্রিম যদি দ্রুত খাওয়া হয় তাহলে প্রচন্ড মাইগ্রেনের ব্যাথা শুরু হয়ে যেতে পারে আপনার।

বিশেষ মুহূর্তে যৌন দুর্বলতা, শুক্র স্বল্পতা, মিলনে সময় সময় কম, লিঙ্গের শিথিলতা সহ যে কোন যৌন সমস্যায় অভিজ্ঞ চিকিৎসকের পরামর্শ নিন এবং স্থায়ী চিকিৎসা গ্রহন করুন। যোগাযোগ করুন ডাক্তার নাজমুলঃ 01799 044 229

আপডেট পেতে লাইক দিন আমাদের ফেসবুক পেজে

Leave a Reply