নিম্ন রক্তচাপ সমস্যা সমাধানের ৭টি ঘরোয়া পদ্ধতি | হেলথ বার্তা
,
শিরোনাম

নিম্ন রক্তচাপ সমস্যা সমাধানের ৭টি ঘরোয়া পদ্ধতি

স্বাভাবিক রক্ত চাপের চাইতে বেশি কিংবা কম দুটোই শরীরের জন্য ক্ষতিকর। রক্তচাপ নিচের রিডিং ৬০ বা তার কম কম হলে সেটাকে নিম্ন রক্তচাপ বা লো ব্লাড প্রেসার ধরা হয়।

আর যদি নিচেরটি ৬০ এর উপরে থাকে, উপরেরটি ১০০ বা তার চেয়ে কমে যায় তাহলে সেটাকেও নিম্ন রক্তচাপ ধরা হয়। নিম্ন রক্তচাপ সমস্যায় যারা ভোগেন তাঁরা প্রায় সারাদিনই ক্লান্তি অনুভব করেন।

এছাড়াও মাথা ঘোরানো, মনোযোগ না থাকা এবং অন্যান্য নানান ধরণের সমস্যা দেখা দিতে পারে। কিছু পদ্ধতি অনুসরণ করলে এবং বিশেষ কিছু খাবার খেলে নিম্ন রক্তচাপ সমস্যার থেকে নিস্তার পাওয়া যায়।

আসুন জেনে নেয়া যাক নিম্ন রক্তচাপের ঘরোয়া ৭টি প্রতিকার।

লবণ খাওয়া বাড়ান:

নিম্ন রক্তচাপের সমস্যায় ভুগলে খাবারে লবণের পরিমাণ একটু খানি বাড়িয়ে দিন। লবণ রক্তচাপ বাড়াতে সহায়তা করে।

  • এক গ্লাস পানি তে ১/২ চা চামচ লবণ গুলিয়ে নিন।
  • নিয়মিত নিম্ন রক্তচাপ সমস্যায় ভুগলে প্রতিদিন দিনে দুই বার করে এভাবে লবণ গোলানো পানি খান। অথবা স্যালাইনও খেতে পারেন।

মধু:

নিম্ন রক্তচাপের কারণে যাদের মাথা ঘোরানোর সমস্যায় পড়েন তাঁরা মাথা ঘোরানো কম করার জন্য মধু খেতে পারেন। মধু তাৎক্ষনিক ভাবে মাথা ঘোরানো কমাতে সহায়তা করবে।

  • এক গ্লাস পানিতে দুই টেবিল চামচ মধু মিশিয়ে নিন।
  • এবার পানিতে এক চিমটি লবণ গুলিয়ে নিন।
  • এবার মধু ও লবণ মেশানো পানিটি খেয়ে নিন। কিছুক্ষণের মধ্যেই নিম্ন রক্তচাপজনিত মাথা ঘুরানো কমে যাবে।

আনার:

আনার ফলটি বেশ দামী। কিন্তু এটি নিম্ন রক্তচাপের ক্ষেত্রে বেশ ভালো ওষুধ হিসেবে কাজ করে। তাই যারা নিম্ন রক্তচাপের সমস্যায় ভুগছেন তাদের সামর্থ্য থাকলে খাবার তালিকায় নিয়মিত আনার রাখুন।

  (এই বিষয়গুলোর উপর ভিডিও বা স্বাস্থ্য বিষয় ভিডিও দেখতে চাইলে সাবস্ক্রাইব করে রাখুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেলটি - ঠিকানা - YouTube.com/HealthBarta)
  • আনার ফল হিসেবে খেতে পারেন
  • অন্যান্য ফলের সাথে সালাদ হিসেবে খেতে পারেন।
  • ব্লেন্ডারে আনার দানা দিয়ে ব্লেন্ড করে ছেঁকে নিন। এরপর জুস হিসেবে আনারের রস খেতে পারেন।

প্রচুর পানি খান:

পানিশূন্যতার কারণে অনেক মানুষ নিম্ন রক্তচাপের সমস্যায় ভোগেন। তাই রক্তচাপ কমে যাওয়ার সমস্যা থাকলে প্রচুর পানি পান করুন।

  • প্রতিদিন ৮ থেকে ১০ গ্লাস পানি পান করুন।
  • প্রচুর তাজা ফলের রস খেতে পারেন।

তুলসী পাতা:

প্রচুর ঔষধি গুনাগুণ সম্পন্ন তুলসী পাতা নিম্ন রক্তচাপ সমস্যা সমাধান করতেও সহায়ক।

  • ১০-১৫ টি তুলসী পাতা বেটে নিন বা ছেঁচে নিন।
  • প্রতিদিন সকালে খালি পেটে তুলসী পাতার রস ও মধুর মিশ্রণটি খান।

পুষ্টিকর খাবার খান:

খাবারের অভ্যাস পরিবর্তন করলে নিম্ন রক্তচাপ সমস্যা থেকে মুক্তি পাওয়া যায়। খাবার তালিকায় বিশেষ কিছু পুষ্টিকর খাবার রাখুন। প্রতিদিন প্রচুর প্রোটিন সমৃদ্ধ খাবার গ্রহণ করুন।

  • আঁশ জাতীয় খাবার, মাছ, মাংস,দুধ, ডিম এবং প্রচুর সবজী রাখুন খাবার তালিকায়।
  • শর্করা জাতীয় খাবার যেমন ভাত, আলু, রুটি, আলু, চিনি ইত্যাদি খাওয়া কমিয়ে দিন।
  • প্রতিদিন কিছুক্ষন পর পর অল্প অল্প করে খাবেন। তাহলে রক্তচাপ স্বাভাবিক থাকবে।

মানসিক চাপ এড়িয়ে চলুন:

অতিরিক্ত মানসিক চাপ এবং বিশ্রামের অভাবের কারণে রক্তচাপ কমে যেতে পারে। তাই মানসিক চাপ এড়িয়ে চলুন এবং পর্যাপ্ত বিশ্রাম নিন।

  • রাত জেগে কাজ করবেন না।
  • নেতিবাচক চিন্তা করা থেকে বিরত থাকুন।
  • প্রতিদিন অন্তত ৭ ঘন্টা ঘুমান।

সাধারণত জীবন যাপনের অভ্যাস বদল এবং খাবার তালিকা পরিবর্তন করলেই রক্তচাপ স্বাভাবিক থাকে। কিন্তু এর পরেও যদি রক্তচাপ কমে যাওয়ার সমস্যা হয় তাহলে জরুরীভিত্তিতে চিকিৎসকের শরণাপন্ন হওয়া উচিত।

আপডেট পেতে লাইক দিন আমাদের ফেসবুক পেজে