,
আপডেট

নীরোগ, মেদহীন শরীর চান? সকালে নাস্তার আগে এই ৬টি কাজ অবশ্যই করুন

নীরোগ ও মেদহীন শরীর আমরা সকলেই চাই। কিন্তু কজনে সেটা অর্জন করতে পারি? মূলত দোষ আমাদেরই। আমাদের নিজেদেরই কিছু ভুল ধারণার কারণে সুস্বাস্থ্য রয়ে যায় হাতের নাগালের বাইরেই।

যেমন ধরুন, সকালে নাস্তার আগে কী করতে হবে? অবশ্যই দাঁত ব্রাশ, অন্তত এমন জবাবটাই দেবেন সবাই, তাই না? জেনে রাখুন, দাঁত ব্রাশ করার পর্বটি নাস্তার আগে নয় বরং করতে হবে নাস্তার পরে।আর এতেই সুস্থ থাকবে আপনার দাঁত। চলুন জেনে নিই সুস্থ তো স্লিম থাকতে সকালে নাস্তার আগে কী করতে ও কী খেতে পারেন আপনি।

১) ঘুম থেকে উঠেই নাস্তা নয়

সকাল একেক জনের একেক সময়ে হয়। কেউ ঘুম থেকে ওঠেন ৭ টায়, কেউ ওঠেন ৯ টায়, কেউ আবার ১১ টায়। যে যখন ওঠেন, তার জন্য সেটাই সকাল। তবে সুন্দর ও নীরোগ শরীর চাইলে অবশ্যই সকাল সকাল ওঠা অভ্যাস করতে হবে। ঘুম থেকে উঠেই নাস্তার টেবিলে বসে গেলে চলবে না। শরীরকে জেগে ওঠার সময় দিতে হবে। ঘুম ভাঙার কমপক্ষে আধা ঘণ্টা পর নাস্তা করুন।

২) অবশ্যই ব্যায়াম

মেদহীন ঝরঝরে শরীর চাইলে অতি অবশ্যই সকালের নাস্তার আগে ব্যায়াম করতে হবে। সকালের ব্যায়াম অনেক বেশী ফলপ্রসূ। সম্ভব হলে বাইরের বাইরে মরিং ওয়াক করতে যাবেন। এতে শরীর ও মন দুটোই ভালো থাকবে।

৩) দাঁতের মর্নিং রুটিন

রাতের বেলা অবশ্যই দাঁত ব্রাশ করে ঘুমাবেন। আর সেটা যদি ঘুমান, তাহলে সকালে দাঁত ব্রাশ করার কোন প্রয়োজন নেই। নাস্তার আগে খুব ভালো করে কুলি করে নেবেন। এবং নাস্তা করা শেষ হলে তারপর দাঁত ব্রাশ করে নেবেন। দাঁত ফ্লস করবেন ও মাউথ ওয়াশ ব্যবহার করবেন।

  (এই বিষয়গুলোর উপর ভিডিও বা স্বাস্থ্য বিষয় ভিডিও দেখতে চাইলে সাবস্ক্রাইব করে রাখুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেলটি - ঠিকানা - YouTube.com/HealthBarta)

৪) এক গ্লাস পানি অবশ্যই

সকালে নাস্তার আগে এক গ্লাস পানি অবশ্যই জরুরী। এই পানিটি ঘুম থেকে ওঠার পর পান করলেই ভালো। সারা রাত আপনার শরীর পানি শুন্য ছিল। তাই ঘুম থেকে উঠেই তাকে পানি দেয়া জরুরী। এই পানি আপনার পাকস্থলীকে সুস্থ রাখবে, আপনার দেহের পানিশূন্যতা রোধ করবে, ভালো রাখবে ত্বক ও চুল। পানি না পান করে খালি পেটে নাস্তা কখনোই খাবেন না।

৫) মেটাবোলিজম বাড়াতে চাইলে

যাদের ওজনের সমস্যা আছে বা হজমের সমস্যা আছে, তাঁরা মেটাবোলিজম বাড়াতে নাস্তার আগে পান করুন মধু মেশানো উষ্ণ পানি। যাদের লেবুতে গ্যাসের সমস্যা হয় না, তাঁরা পাকা লেবুর রস সামান্য চিপে দিতে পারেন। এই পানীয়টি মেটাবোলিজম বাড়ায় ও ওজন কমাতে সহায়তা করে।

৬) পেট বা লিভারের সমস্যা আছে যাদের

এমন সমস্যা থাকলে সকালে নাস্তার আগে খালি পেটে অবশ্যই এক কোয়া রসুন খান। আপনি চাইলে চিবিয়ে খেতে পারেন। চাইলে পানি দিয়ে গিলেও খেতে পারেন। খালি পেটে রসুন খাওয়া হাইপারটেনশন ও স্ট্রেস কমাতে সহায়তা করে, অন্যদিকে হজমের গণ্ডগোল রোধ করে।

স্ট্রেস থেকে পেটে গ্যাসের সমস্যা হলে সেটাও প্রতিরোধ করে খালি পেটে রসুন। অন্যদিকে পেটের গণ্ডগোল জনিত অসুখ, যেমন ডায়রিয়া হলে এই খালি পেটে রসুন দ্রুত তা সারিয়ে দেয়। সকালে খালি পেটে রসুন খাওয়া শরীরের রক্ত পরিশুদ্ধ করে ও লিভারের ফাংশন ভালো রাখতেও সহায়তা করে।

বিশেষ মুহূর্তে যৌন দুর্বলতা, শুক্র স্বল্পতা, মিলনে সময় সময় কম, লিঙ্গের শিথিলতা সহ যে কোন যৌন সমস্যায় অভিজ্ঞ চিকিৎসকের পরামর্শ নিন এবং স্থায়ী চিকিৎসা গ্রহন করুন। যোগাযোগ করুন ডাক্তার নাজমুলঃ 01799 044 229

আপডেট পেতে লাইক দিন আমাদের ফেসবুক পেজে

Leave a Reply