২০ জন নারীর সাথে যৌন সম্পর্ক প্রোস্টেট ক্যান্সার হওয়ার সম্ভাবনা কমিয়ে দেয়: গবেষণা তথ্য | হেলথ বার্তা
,
আপডেট

২০ জন নারীর সাথে যৌন সম্পর্ক প্রোস্টেট ক্যান্সার হওয়ার সম্ভাবনা কমিয়ে দেয়: গবেষণা তথ্য

একজন নয়, কম পক্ষে ২০ জন নারীর সাথে একজন পুরুষের যৌন সম্পর্ক থাকলে প্রোস্টেট ক্যান্সার হওয়ার সম্ভাবনা কমিয়ে দেয় বলে গবেষণা রিপোর্ট প্রকাশ হয়েছে। তবে এই ২০ জন নারী একজন পূরুষের পুরো জীবনে হতে পারে। কিন্তু যারা সমকামী (এবং ২০ জনের বেশি পার্টনার পরিবর্তন করেছেন) কিংবা ভার্জিন তাদের ক্ষেত্রে এই ক্যান্সার হওয়ার সম্ভবনা দ্বিগুণ বেড়ে যায়।

যাদের সারা জীবনে মাত্র একজন নারী সঙ্গী ছিল, তাদের সাথে ওই পূরুষদের (যাদের অন্তত: ২০ জন সঙ্গী ছিল ) তুলনা করে দেখা গেছে, পরের দলের পুরুষদের শতকরা ২৮ ভাগ কম ক্যান্সার হয়েছে। এই গবেষণাটি জার্নাল ক্যানসার এপিডেমিওলোজিতে প্রথম প্রকাশিত হয়েছে।

প্রোস্টেট ক্যান্সার সেল

এতোদিন ধারণা করা হতো একের অধিক নারী সঙ্গ নানাবিধ শারীরিক উপসর্গ ও রোগব্যাধির কারণ হতে পারে। আবার এটাও মনে করা হয়ে থাকে নৈতিকভাবে এধরনের থিওরি কখনোই সমর্থন যোগ্যও নয়।

তথাপি সকল ধারণাকে ভ্রান্ত প্রমাণ করে দিয়ে মন্ট্রিয়ল ইউনিভার্সিটির একদল গবেষক দল গতকাল তাদের গবেষণা পত্র প্রকাশ করেছেন- সেখানে তারা দাবী করেছেন, ২০ জনের অধিক বা ২০ জনের মতো নারীর সাথে যারা যৌন মিলন করেছেন অর্থাৎ ঘন ঘন যৌন সঙ্গী পরিবর্তন করেছেন, তাদের প্রোস্টেট ক্যানসারের মতো ঝুঁকি হ্রাস পায় বা রক্ষা পায়।

তবে তাদের গবেষণায় বলছেন, যারা সম-লিঙ্গের সাথে যৌন মিলিত হন, তাদের ক্ষেত্রে এর ফলাফল উল্টো হয়েছে। এ ক্ষেত্রে তারা সফলতা পেয়েছেন শুধু মাত্র পুরুষ নারী সঙ্গীর সাথে যৌন মিলনের পরীক্ষায়। বিগত চার বছর ধরে তারা স্টাডি করে এই ফলাফল পেয়েছেন।

মন্ট্রিয়ল ইউনিভার্সিটির এই গবেষণার ফলাফল নিয়ে গতকাল লন্ডনের ডেইলি টেলিগ্রাফ ও ডেইলি ইন্ডিপেন্ডেন্ট সহ বিশ্বের বড় বড় পত্রিকা ফিচার প্রকাশ করেছে।

  (এই বিষয়গুলোর উপর ভিডিও বা স্বাস্থ্য বিষয় ভিডিও দেখতে চাইলে সাবস্ক্রাইব করে রাখুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেলটি - ঠিকানা - YouTube.com/HealthBarta)

গবেষণার লিড রিসার্চার ডঃ মারি এলিস প্যারেন্ট বলেন, তারা ২০০৫ সাল থেকে ২০০৯ সাল পর্যন্ত ৩,২০০ নারী পুরুষকে নিয়ে তাদের গবেষণা চালিয়ে এই ফলাফলে উপনীত হয়েছেন।

তারা বলছেন, গে-সেক্স যারা করেন, তাদের মধ্যে এই রেজাল্ট পাওয়া যায়নি বরং তাতে আরো অনেক রোগের উপসর্গও তারা পেয়েছেন। তবে একজন মাত্র সম-সঙ্গীর ক্ষেত্রে ফলাফল প্রায় অনুরূপ। কেননা, একাধিক সম-লিঙ্গের যৌন সঙ্গীর মধ্যে নানাবিধ যৌন বাহিত রোগ দেখা দেয়।

এ ব্যাপারে ডঃ মারি এলিস প্যারেন্টকে একাধিক নারী যৌন সঙ্গী পুরুষের জন্য রিকমেন্ড করেন কিনা- এমন প্রশ্নের উত্তরে তিনি বলেন, অবশ্যই নয়, আমরা এ রকম রিকমন্ডের অবস্থানে নেই।

গবেষণায় আরো চমকপ্রদ যে তথ্য তারা পেয়েছেন, যারা কখনো সেক্স বা যৌন মিলন করেন নি, তাদের ক্ষেত্রে দেখা গেছে আরো বেশী রিস্ক রয়ে গেছে প্রোস্টেট ক্যান্সার হওয়ার বা ক্যানসার ডেভেলপ করার।

প্রোস্টেট ক্যান্সারের সিটি স্ক্যান

এই গবেষণা করতে গিয়ে তারা আরো যে তথ্য পেয়েছেন, তা হলো- যে সব পুরুষেরা ২০ জনের অধিক নারীর সাথে যৌন মিলন করেছেন তাদের জীবন যাপনে, তাদের ক্ষেত্রে ২৮ পার্সেন্ট কম ঝুঁকি প্রোস্টেট ক্যানসারের, আর ১৯ পার্সেন্টের মতো কম ঝুঁকি থাকে অত্যধিক আক্রমণাত্মক বা মারাত্মক ধরনের ক্যানসারের, যা রোধে অনেক ক্ষেত্রেই চিকিৎসা কার্যকর হয়না।

তবে গবেষণায় তারা পেয়েছেন, যারা তাদের জীবনে ২০ জনের অধিক পুরুষ সঙ্গীর সাথে যৌন মিলন করেছেন, তাদের ক্ষেত্রে ৫০০ পার্সেন্ট মারাত্মক প্রোস্টেট ক্যানসারের ঝুঁকি রয়েই গেছে।

এই গবেষণাটি জার্নাল ক্যানসার এপিডেমিওলোজিতে প্রথম প্রকাশিত হয়েছে ।

বিশেষ মুহূর্তে যৌন দুর্বলতা, শুক্র স্বল্পতা, মিলনে সময় সময় কম, লিঙ্গের শিথিলতা সহ যে কোন যৌন সমস্যায় অভিজ্ঞ চিকিৎসকের পরামর্শ নিন এবং স্থায়ী চিকিৎসা গ্রহন করুন। যোগাযোগ করুন ডাক্তার নাজমুলঃ 01799 044 229

আপডেট পেতে লাইক দিন আমাদের ফেসবুক পেজে

Leave a Reply