,
আপডেট

পরস্পরবিরোধী মনোভাবে বাড়ে হৃদরোগের ঝুঁকি

একে অপরের প্রতি নিরাপত্তাহীনতার মনোভাব বাড়িয়ে দিতে পারে হৃদরোগের ঝুঁকি ৷ নতুন এক গবেষণায় উটাহ্ বিশ্ববিদ্যালয়ের মনোবিদ ব্রেট উচিনো জানিয়েছেন এই কথা ৷

বিজ্ঞানীরা প্রায় ১৩৬ জন দীর্ঘ দিন ধরে সংসার করা দম্পতিদের নিয়ে একটি গবেষণা করেন ৷ এই গবেষণায় তারা দেখেন একে অপরের প্রতি মনোভাব তাদের হৃদয়ের উপর প্রভাব ফেলে কিনা ৷ এদের মধ্যে ৩০ শতাংশ দম্পতিদের মধ্যে একে অপরের প্রতি ইতিবাচক মনোভাব রয়েছে এবং বাকী ৭০ শতাংশ দম্পতির মধ্যে একে অপরের প্রতি মিশ্র প্রকৃতির মনোভাব পরিলক্ষিত হয়েছে ৷

  (এই বিষয়গুলোর উপর ভিডিও বা স্বাস্থ্য বিষয় ভিডিও দেখতে চাইলে সাবস্ক্রাইব করে রাখুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেলটি - ঠিকানা - YouTube.com/HealthBarta)

একে গবেষকেরা পরস্পরবিরোধী মনে বলে উল্লেখ করেছেন ৷ এই গবেষণায় তাদের কোলেস্টেরল ও রক্তে শর্করার মাত্রাও পরীক্ষা করা হয় এবং অন্যান্য দৈনন্দিন অভ্যেস যেমন শরীরচর্চা, ধূমপানের অভ্যাস ও খতিয়ে দেখা হয় ৷

গবেষকেরা দেখেন যে বেশির ভাগ দম্পতিই একে অপরের প্রতি বিরোধী মনোভাব পোষণ করেন এবং তাদের ধমণীতে অতিরিক্ত ক্যালসিয়াম উত্থাপন হয় এবং এই দম্পতিদের মধ্যেই হৃদরোগের ঝুঁকি সবচেয়ে বেশি ৷ এথেকেই তারা জানিয়েছেন স্বামী স্ত্রীর একে অপরের প্রতি মিশ্র মনোভাব সম্পর্কের ভাঙনের মতো হৃদয়ের স্বাস্থ্যেও চিড় ধরাতে সক্ষম ৷

সম্প্রতি এই গবেষণাটি সাইকোলজিক্যাল সায়েন্সের একটি জার্নালে প্রকাশিত হয়েছে ৷

বিশেষ মুহূর্তে যৌন দুর্বলতা, শুক্র স্বল্পতা, মিলনে সময় সময় কম, লিঙ্গের শিথিলতা সহ যে কোন যৌন সমস্যায় অভিজ্ঞ চিকিৎসকের পরামর্শ নিন এবং স্থায়ী চিকিৎসা গ্রহন করুন। যোগাযোগ করুন ডাক্তার নাজমুলঃ 01799 044 229

আপডেট পেতে লাইক দিন আমাদের ফেসবুক পেজে

Leave a Reply