,
আপডেট

জেনে নিন, নারীরা প্রথম পছন্দের তালিকায় কেমন পুরুষদের সবার আগে চায়

লজ্জা নারীর ভূষণ একথা সকলেই জানেন৷ কিন্তু তাই বলে পুরুষের যে লজ্জা একেবারেই নেই তা কিন্তু একেবারেই নয়৷ এমনও অনেক পুরুষ রয়েছেন যারা নারীর সামনে একটু লাজুকই বনে যান৷ কিন্তু তাই বলে ভাববেন না লাজুক বলে তিনি বোকা৷ কারণ এই লাজুক পুরুষরাই কিন্তু নারীদের ক্ষেত্রে আদর্শ৷ নারীর পছন্দের তালিকায় লাজুক পুরুষের স্থানই সবার আগে৷

১. মেয়েরা সাধারণত পুরুষের তুলনায় বেশি কথা বলেন৷ প্রেমিকের সঙ্গে দেখা করতে গিয়েও নারীর এই স্বভাব পাল্টায়না৷ এক্ষেত্রে লাজুক প্রেমিক হলে সোনায় সোহাগা৷ গোটা ময়দানই আপনার৷ তিনি লাজুক হওয়ার কারণে এমনিতেই কম কথা বলবেন৷ তাই আপনার কথায় মাঝখানে কোনো বিরতি থাকবে না৷

২. লাজুক প্রকৃতির পুরুষরা মনের দিক থেকে সত্যি হন৷ তারা কোনো মহিলাকে নিজের সম্পর্কে বানিয়ে কোনো কথা বলেননা৷ এমনকি তাদের স্বভাবে মিথ্যা বলার প্রবণতাও কম৷ তাই এক্ষেত্রে ধরে নেওয়া যেতেই পারে লাজুক পুরুষরা খাঁটি মনের মানুষ৷

  (এই বিষয়গুলোর উপর ভিডিও বা স্বাস্থ্য বিষয় ভিডিও দেখতে চাইলে সাবস্ক্রাইব করে রাখুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেলটি - ঠিকানা - YouTube.com/HealthBarta)

৩. একজন লাজুক প্রকৃতির পুরুষ যেহেতু একটু কম কথা বলেন সে কারণেই তিনি যেটুকু কথা বলেন সেটুকুই বিশেষ অর্থপূর্ণ৷ আর সম্পর্কের ক্ষেত্রেও তিনি আন্তরিক ভাবে অকপট হবেন সেটা বলাই বাহুল্য৷

৪. লাজুক পুরুষের ব্যবহারের মধ্যে রয়েছে আন্তরিকতা৷ এতে আপনি নিজেকে একেবারেই নিরাপদ অনুভব করবেন৷ তার আন্তরিক আহ্বানই আপনাকে তার আরও কাছে এনে দেবে৷

৫. যে পুরুষ কম কথা বলেন তিনি চিরকালিন একজন ভালো শ্রোতা৷ আপনার সব কথাই তিনি মন দিয়ে শুনবেন এবং প্রযোজনে পরামর্শ দেবেন৷ এতে যেকোনো নারীই মনের সব কথা বলে মানসিক সুখ লাভ করতে পারবেন৷

৬. লাজুক প্রকৃতির পুরুষ মেয়েদের প্রত্যেকটি বিষয়ে মনোযোগী হন৷ তিনি আপনার সব দিকে এমন ভাবে খেয়াল রেখে চলবেন যে আপনি তার ওপর রাগও করতে পারবেন না৷

৭. এই ধরণের পুরুষ অনেক বেশি ভরসাযোগ৷ কারম সম্পর্কের ক্ষেত্রে এরা কখনও বিশ্বাসঘাতকতা করেন না৷ তাই যেকোনো মেয়ে চোখ বন্ধ করে এই ধরণের পুরুষকে বিশ্বাস করতে পারেন

বিশেষ মুহূর্তে যৌন দুর্বলতা, শুক্র স্বল্পতা, মিলনে সময় সময় কম, লিঙ্গের শিথিলতা সহ যে কোন যৌন সমস্যায় অভিজ্ঞ চিকিৎসকের পরামর্শ নিন এবং স্থায়ী চিকিৎসা গ্রহন করুন। যোগাযোগ করুন ডাক্তার নাজমুলঃ 01799 044 229

আপডেট পেতে লাইক দিন আমাদের ফেসবুক পেজে

Leave a Reply